ব্লগিং এ নিশ রিসার্চ কিভাবে করবেন জেনে নিন

 

ব্লগিং এ নিশ রিসার্চ কিভাবে করবেন জেনে নিন

ব্লগিং এর জন্য নিশ রিসার্চ করার উপায় 

কিভাবে নিস রিসার্চ করতে হয়? এ প্রশ্নটা হয়তো একবার না একবার আপনার মনে নিশ্চয়ই জেগেছে!

বর্তমানে ব্লগিং করার সময় নিস রিসার্চ এর গুরুত্ব অনেক বেশি। কেননা google এক্সপাইটাইস এবং এক্সপেরিয়েন্স বিষয়টাকে খুবই প্রাধান্য দিচ্ছে। আর আপনি যদি একটি নির্দিষ্ট নিস নিয়ে কাজ করেন সেক্ষেত্রে গুগলে ভালো রেঙ্ক করার এবং টিকে থাকার সম্ভাবনা রয়েছে।

আজকের এই সংক্ষিপ্ত আর্টিকেলে নিশ রিসার্চ বিষয়টা নিয়ে আলোচনা করার চেষ্টা করব। তবে এই বিষয়টা বলে বোঝানো খুবই মুশকিল তবে খুব সংক্ষেপে বোঝানোর চেষ্টা করব। 

নিশ রিসার্চ মূলত খুবই সহজ একটি বিষয়, তবে এখানে অনেক রিসার্চ করার মতো এখানে বিষয় রয়েছে। 

নিশ রিসার্চ করার অনেকগুলো পদ্ধতি রয়েছে তবে আমি আপনাদেরকে কয়েকটি পদ্ধতির মধ্যে ১-২ টি পদ্ধতি বলব!

1️⃣ আপনি যে বিষয় সম্পর্কে ভালো জানেন কিংবা ইন্টারেস্ট রয়েছে সে বিষয় নিয়ে আপনি ব্লগিং করার চেষ্টা করুন। কেননা এখানে সব থেকে ভালো হবে টিকে থাকার সম্ভাবনা রয়েছে। আপনি যদি টেকনোলজিক্যাল রিলেটেড কোন বিষয় নিয়ে ভালো জানেন তাহলে সেই রিলেটেড ব্লগিং করার চেষ্টা করুন। 

আপনি যদি এনিমেল কিংবা ফার্মিং এই রিলেটেড কোন বিষয় সম্পর্কে ভালো জানেন তাহলে সেই রিলেটেড ব্লগিং করার চেষ্টা করুন।

এই পদ্ধতিতে আপনি ব্লগিং করে খুব তাড়াতাড়ি সফলতা পাবেন এটা আমার দৃঢ় বিশ্বাস। কেননা আপনি যখন নতুন একটি বিষয় নিয়ে ব্লগিং করতে যাবেন তখন আপনাকে বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে জানতে হবে নতুন করে রিসার্চ করতে হবে, সময় ব্যয় করতে হবে তারপর সেই বিষয় নিয়ে আপনি সামান্য হলে ধারণা পাবেন। যা অনেক সময় সাপেক্ষ একটি বিষয়।  

জিমেইল একাউন্ট ডিজেবল হতে পারে। জেনে নিন কারণ

উদাহরণস্বরূপ, আপনি মোবাইল নিয়ে খুব ভালো জানেন এবং মোবাইলের স্পেসিফিকেশন এবং মোবাইলে কি কি জিনিস থাকা প্রয়োজন এই রিলেটেড যাবতীয় জ্ঞান রয়েছে আপনার। আপনি চাইলে এখন মোবাইল নিয়ে একটি ব্লগ তৈরি করতে পারেন এবং সেখানে বিভিন্ন ধরনের মোবাইল নিয়ে রিভিউ করতে পারেন। 

প্রথমত আপনি এডসেন্সের মাধ্যমে ইনকাম করতে পারবেন এবং এর পাশাপাশি আপনি youtube চ্যানেল খুলে সেখানেও আয় করতে পারবেন। আর এই সেক্টরটাতে অনেক স্পন্সারই পাওয়া যায় সুতরাং এই সেক্টরটা খুব একটা খারাপ না যদি আপনার এই বিষয়ে নলেজ থেকে থাকে। 

এটা প্রথম আইডিয়া তবে এই পদ্ধতি আমি সব থেকে বেশি সবাইকে প্রেফার করি।

2️⃣ অন্যদের কাছ থেকে আইডিয়া নেয়া

আপনি flippa অথবা motion invest এর মত ওয়েবসাইট ক্রয় বিক্রয় প্ল্যাটফর্ম গুলো থেকে আপনার ওয়েবসাইটের জন্য আইডিয়া নিতে পারেন। দেখতে পারেন যে যারা ওয়েবসাইট বিক্রি করতেছে তারা কি ধরনের ওয়েবসাইট তৈরি করেছে, কি কি বিষয় নিয়ে কাজ করেছে, কোন কোন টপিক নিয়ে আলোচনা করার চেষ্টা করেছে এই রিলেটেড যাবতীয় বিষয়। এতে করে আপনি নিস গুলো খুব সহজেই লিস্ট করে সেখান থেকে সব থেকে ভালো নিস খুঁজে বের করতে পারবেন। তবে সব সময় ওয়েবসাইটকে দেখার পর সেগুলো থেকে আইডিয়া নেয়ার চেষ্টা করবেন সরাসরি সেই নিস নিয়ে কাজ করা শুরু করবেন না। 

3️⃣ আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এর সাহায্য নেয়া

আপনি চাইলে Bing এর AI কিংবা চ্যাট জিপিটি অথবা google Gemini সাহায্য নিতে পারেন নিস রিসার্চ এর জন্য। আপনি লাস্ট সিম্পলি কিছু প্রম্পট দিতে পারেন তাহলে চ্যাট জিপিটি কিংবা অন্যান্য এআই গুলো আপনাকে হাজারো নিসের আইডিয়া দিয়ে দিবে।

বিষয়গুলো আরো অনেক ডিপ। প্রত্যেকটি বিষয়ে সম্পর্কে ভালোভাবে আপনি ইউটিউবে সার্চ করতে পারেন। সব সময় মাথায় রাখবেন নিস রিসার্চ কোন সহজ কাজ না। আবার যদি করতে পারেন তাহলে খুব কঠিন কাজ না। 

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url